কুষ্টিয়ার মিরপুর উপজেলায় বিয়ের আশ্বাসে নারীকে ধর্ষণ, গ্রেফতার ১

কুষ্টিয়ার মিরপুর উপজেলায় বিয়ের আশ্বাসে নারীকে ধর্ষণ, গ্রেফতার ১

কুষ্টিয়া জেলা প্রতিনিধিঃ কুষ্টিয়ার মিরপুর উপজেলায় বিয়ের আশ্বাসে নারীকে ধর্ষণের অভিযোগে নুরুজ্জামান ওরফে পলাশ মোল্লা নামে এক ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

শনিবার আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দির পর তাকে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।

গ্রেফতার পলাশ মোল্লা কুষ্টিয়ার মিরপুর উপজেলার কুর্শা ইউনিয়নের মাজিহাট এলাকার দাউদ মাস্টারের ছেলে। তিনি বঙ্গবন্ধু আদর্শ ঐক্য পরিষদ কুষ্টিয়া জেলা শাখার সভাপতি।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, কুষ্টিয়ার মিরপুর উপজেলার কুর্শা ইউনিয়নের মাঝিহাট গ্রামের স্বামী পরিত্যক্ত ও ভূমিহীন এক নারীকে বিয়ের আশ্বাস দেখিয়ে দীর্ঘদিন ধরে ধর্ষণ করে আসছিল একই গ্রামের পলাশ মোল্লা।

একপর্যায়ে ওই নারী অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়েন। পরে ৮ মাসের অন্তঃসত্ত্বা ওই নারীর গর্ভপাত ঘটানোর জন্য স্থানীয় এক চিকিৎসকের পরামর্শে ওষুধ খাওয়ানো হয়।

গত বৃহস্পতিবার দুপুরে নিজ বাড়িতে ওই নারী একটি মৃত মেয়ে শিশু প্রসব করেন। এ ঘটনায় ওই নারীর মা বাদী হয়ে পলাশ মোল্লাকে আসামি করে মামলা করেছেন। মামলার পর শনিবার ভোরে অভিযান চালিয়ে পলাশকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

মিরপুর থানার ওসি (তদন্ত) সঞ্জয় কুমার কুণ্ডু জানান, ভুক্তভোগী নারীর মা বাদী হয়ে ১৬ অক্টোবর মিরপুর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে একটি মামলা করেন। রাতেই এ ঘটনায় ওই নারী ২২ ধারায় জবানবন্দি দেন।

এ ঘটনায় পুলিশ অভিযান চালিয়ে পলাশ মোল্লাকে গ্রেফতার করে। ওই নারীর ডাক্তারি পরীক্ষা সম্পন্ন হয়েছে।

ওসি আরও বলেন, শনিবার বিকালে আসামিকে আদালতে সোপর্দ করা হয়। আসামি ধর্ষণের ঘটনায় ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে।

শেয়ার করে অন্যদের দেখার সুযোগ করে দিন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *